আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ অর্থ মন্ত্রণালয়, গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার
মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২৬ অক্টোবর ২০১৫

প্রতিমন্ত্রী

মাননীয় অর্থ প্রতিমন্ত্রী জনাব এম এ মান্নান-এর সংক্ষিপ্ত জীবন বৃত্তান্ত

 

এম এ মান্নান ১৯৪৬ সালে সুনামগঞ্জ জেলার দক্ষিণ সুনামগঞ্জ উপজেলার ডুংরিয়া গ্রামের এক সম্ভ্রান্ত পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন। তিনি গ্রামের স্কুলে তাঁর প্রাথমিক শিক্ষা সমাপ্ত করেন এবং সারগোদায় অবস্থিত পাকিস্তান এয়ারফোর্স স্কুল থেকে ও লেভেল সমাপ্ত করেন। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্নাতক ডিগ্রি অর্জনের পর ১৯৭৪ সালে তদানীন্তন সিএসপি ক্যাডারে যোগদান করেন এবং জেলা প্রশাসক কিশোরগঞ্জ, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম সহ বাংলাদেশ সরকারের বিভিন্ন পদে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে যুগ্নসচিব, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের মহাপরিচালক এবং এনজিও ব্যুরোতে মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। তিনি ইকোনমিক মিনিস্টার হিসেবে জেনেভায় অবস্থিত বাংলাদেশের স্থায়ী মিশনের দায়িত্ব পালন করেন। তিনি বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটিরশিল্প কর্পোরেশনের চেয়ারম্যান হিসেবে ২০০৩ সালে সরকারী চাকুরী হতে অবসর গ্রহণ করেন।

 

এম এ মান্নান ২০০৫ সালে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগে যোগদান করেন এবং ২০০৮ সালে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ থেকে সাংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। নবম জাতীয় সংসদে তিনি পাবলিক অ্যাকাউন্টস সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। পাশাপাশি তিনি জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়, অর্থ মন্ত্রণালয়, এবং প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত স্থায়ী কমিটির সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন যেখানে তিনি মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর প্রতিনিধিত্ব করতেন। তিনি ২০১০ এবং ২০১৩ সালে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগের কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য নির্বাচিত হন।

 

জনাব মান্নান বিবাহিত, তাঁর স্ত্রী জুলেখা মান্নান ঢাকা উইমেন্স কলেজের একজন শিক্ষিকা। তাঁর মেয়ে সারা একজন চিকিৎসক যিনি স্বামীর সাথে আমেরিকায় বসবাস করছেন। তাঁর পুত্র সাদাত ব্রিটেনে অবস্থিত বার্কলেইস ক্যাপিটাল ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক এবং লন্ডনে বসবাস করছেন।

 

জনাব মান্নান ডেভেলপমেন্ট লিটারেচার এ আগ্রহী এবং বাংলাদেশের গ্রামীণ জনগণের কল্যাণে কাজ করছেন।

 

দ্বিতীয়বারের মত সাংসদ নির্বাচিত হয়ে ২০১৪ সালের ১২ই জানুয়ারী তিনি নতুন মন্ত্রী সভার সদস্য হিসেবে অর্থ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী নিযুক্ত হন।


Share with :
Facebook Facebook